সোমবার, ১৮ ডিসেম্বর ২০১৭

Beta Version

নামাজ শরীর-মন ও আত্মিক উৎকর্ষের উপায়

POYGAM.COM
নভেম্বর ১৯, ২০১৭
news-image

প্রতিদিন পাঁচ ওয়াক্ত নামাজের মাধ্যমে মানুষ যেমন আল্লাহ তা‘আলার সন্তুষ্টি লাভ করে থাকে, তেমনি মানসিক উৎকর্ষ লাভের পাশাপাশি শারীরিক সুস্থতা লাভেরও উত্তম উপায় হলো নামাজ। নামাজের উপকারিতা শুধু বাহ্যিক নয়, বরং এটি একটি অতুলনীয় ইবাদত, যার মাধ্যমে আত্মিক-মানসিক, ইহকালীন-পরকালিন প্রভূত কল্যাণ লাভ করা সম্ভব।

নামাজ সর্ববিবেচনায় শ্রেষ্ঠ ইবাদত। নামাজে দাঁড়িয়ে আমরা মূলত আল্লাহর সামনেই দাঁড়াই এবং তামাম সৃষ্টিজগতের স্রষ্টা প্রতিপালকের সামনে নিজকে পেশ করি। মহান দয়াময় প্রভুর কাছে বান্দাহ নিজকে সমর্পণ করে নিবিষ্ট চিত্তে তাঁর হুকুম পালন করে। আল্লাহর আয়াত তিলাওয়াতের মাধ্যমে তাঁর আনুগত্যের চরম পরাকাষ্ঠা প্রদর্শন করা হয়। আল্লাহর সাথে বান্দাহর সম্পর্ক বৃদ্ধি পায়। এভাবে আত্মার পরিশুদ্ধি ও আল্লাহর নৈকট্য অর্জন হয়।

বাহ্যিক দিক দিয়ে যদি দেখি, নিয়মিত নামাজ আদায় করলে কোনো মানুষের মন বিকারগ্রস্ত থাকতে পারে না। পাঁচ ওয়াক্ত নামাজের জন্য পাঁচ বার ওযুতে যে পবিত্রতা রক্ষা হয়, তাতে চর্মরোগসহ অনেক অসুখ থেকে মুক্ত থাকা যায়।

পাশাপাশি নামাজের তাগিদে মনও খারাপ চিন্তা থেকে বিরত থাকে। শয়তানের কুমন্ত্রণা থেকে সুরক্ষিত থাকা যায়। অন্তত নামাজ আদায়রত সময়টুকু মানুষ ভালো চিন্তায় নিমগ্ন থাকে। এভাবে মন থাকে রোগমুক্ত।

সঠিক নির্দেশনা অনুযায়ী পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ আদায়ে শরীরের যে কসরত হয় তার চেয়ে উত্তম শরীরচর্চা চিকিৎসা বিজ্ঞান আজও দিতে পারেনি, পারবেও না কোনো দিন। একথা অস্বীকার করার কোনো কারণ নেই যে, ব্যায়াম বা এক্সারসাইজ কিংবা মেডিটেশন শরীরকে সুস্থ রাখে। তবে এটাও শতভাগ নিশ্চিত যে, নির্ভুল নামাজ আদায় সর্বোত্তম শরীরচর্চা।

প্রতিদিন ১৭ রাকআত ফরজ নামাজে অঙ্গ-প্রতঙ্গের শিষ্টাচার শরীরকে যেমন সতেজ রাখতে সাহায্য করে তেমনি নিভৃতে, যতনে পরম করুণাময় আল্লাহ তা‘আলাকে স্মরণ করার মহিমান্বিত সুযোগ এনে দেয় নামাজ। নামাজ একনিষ্ঠ প্রার্থনার একমাত্র মাধ্যম। আর আত্মশুদ্ধি এবং আল্লাহ তা‘আলার সান্নিধ্য লাভের সহজ উপায়।

পার্থিব জীবনের শত ব্যস্ততাকে একটি সুন্দর নিয়মতান্ত্রিক ছকে বাঁধতে সবচেয়ে সহায়ক শক্তি নামাজ। নামাজের সম্মোহনী ক্ষমতা মানুষকে পাপ কাজ থেকে বিরত রাখে। নামাজের উসিলায় ছোট ছোট গুনাহগুলো ঝরে পড়ে। নামাজ পরিশীলিত জীবন দান করে।

হাদীসের বাণী: আসসলাতু ইমাদ-উদ্দীন— নামাজ দীন ইসলামের স্তম্ভ বা খুঁটি স্বরূপ। নামাজ মনকে ভালো কাজে নিবিষ্ট রাখে, শরীর ও মনকে চালিত করে সুপথে।

এছাড়া ইহকাল ও পরকালের বেশুমার কল্যাণ নিহিত রয়েছে এই ইবাদতে। নামাজকে হেফাজত বা সঠিকভাবে সংরক্ষণকারীর জন্য দুনিয়ার জীবনে রয়েছে শান্তি-সমৃদ্ধি। আর আখিরাতে সর্বপ্রথম নামাজের হিসাব নেয়া হবে। যার নামাজের আমল ভালো থাকবে তার জন্য পরবর্তী সব হিসাব-নিকাশ সহজ করা হবে। জান্নাতের পথ তার জন্য সুগম করে দেবেন আল্লাহ মেহেরবান।

কামরুল ইসলাম হুমায়ুন